শাহীন চাকলাদারের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার

নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর: যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার তার মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নিয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার যশোর রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় থেকে শাহীন চাকলাদারের দুইটি মনোনয়নপত্রই প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন যশোর জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক এসএম মাহমুদ হাসান বিপু।

তিনি জানান, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করতে বুধবার যশোর-৩ ও যশোর-৬ আসন থেকে মনোনয়নপত্র জমা দেন শাহীন চাকলাদার। এর আগে গত ২৫ নভেম্বর তিনি যশোর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের পদ থেকে পদত্যাগ করেন। কিন্তু পদত্যাগপত্র গ্রহণ না হওয়ায় শাহীন চাকলাদার তার দুইটি মনোনয়নপত্রই প্রত্যাহার করে নেন।

দলীয় নেতাকর্মীদের সরব উপস্থিতি ও উৎসবমূখর পরিবেশে যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার জেলার দুইটি আসন থেকে দলীয়ভাবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। বুধবার সকালে যশোর-৩ ও যশোর-৬ আসনের মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করার পর বিকালে জেলা রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় তা জমা দেন।

বুধবার যশোর- ৩ (সদর) আসনে শাহীন চাকলাদারের পক্ষে মনোনয়নপত্র জমা দেন জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা একেএম খয়রাত হোসেন। এসময় তার সাথে ছিলেন যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সংগঠনিক সম্পাদক এসএম আফজাল হোসেন, আইন বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল কাদির, দপ্তর সম্পাদক মাহমুদ হাসান বিপু ও জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি অসীম কুন্ডু।

আর যশোর-৬ (কেশবপুর) আসনে শাহীন চাকলাদারের পক্ষে মনোনয়নপত্র জমা দেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রুহুল আমিন। এসময় তার সাথে ছিলেন সাধারণ সম্পাদক গাজী গোলাম মোস্তফা, জেলা আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা কাজী রফিক ও কেশবপুর পৌরসভা পৌরসভার মেয়র রফিকুল ইসলাম মোড়ল।

দলীয় সূত্রে জানা যায়, আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্থানীয় সরকারের জনপ্রতিনিধিদের মনোনয়ন না দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় আওয়ামী লীগ। এরই মধ্যে যশোরের ছয়টি আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীদের চিঠিও দেয়া হয়। এমন পরিস্থিতিতে নেতাদের সবুজ সংকেত পেয়ে তিনি দুইটি আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। তবে আজ মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন আলোচিত এই প্রার্থী।

আরো পড়ুন>>>উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদারের পদত্যাগ

আরো পড়ুন>>> দুই আসনে মনোনয়নপত্র জমা দিলেন শাহীন চাকলাদার

স্বাআলো/ডিএম