বয়সে ছোট প্রেমিকের নেতৃত্বে স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ

রংপুর ব্যুরো: রংপুরের সারাই বকুলতলা এলাকায় দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে বাড়ি থেকে অপহরণ করে পাশের বাড়িতে নিয়ে গণধর্ষণ করেছে সাবেক প্রেমিকসহ কয়েক যুবক। তিন বছরের প্রেমের সম্পর্ক ছাড়াছাড়ি হয়ে যাওয়ায় জেরেই এ ঘটনা ঘটে। এঘটনায় ওই স্কুল ছাত্রীর সাবেক প্রেমিক বিপ্লব নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের হারাগাছ থানা, পারিবারিক ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, কাউনিয়া উপজেলার সারাই কাচু বকুলতলা এলাকার মদামদন উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির এক ছাত্রীর সাথে একই এলাকার আবুল কালামের পুত্র নবম শ্রেণির ছাত্র বিপ্লবের সাথে তিন বছরের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। পরে মেয়েটির সাথে প্রেমের সম্পর্ক নষ্ট হয়ে যায়। এজন্য মেয়েটিকে দায়ী করে তাকে দেখে নেয়ার হুমকি দিয়ে আসছিল বিপ্লব। শুক্রবার রাতে ঘরের সিধ কেটে সাবেক প্রেমিক বিপ্লবের নেতৃত্বে একদল দুর্বৃত্ত মেয়েটিকে অপহরণ করে পাশের এক বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে সাবেক প্রেমিকসহ অন্য যুবকরা পালাক্রমে ধর্ষণ করে। বিষয়টি জানাজানির পর সকালে মেয়েটির অভিভাবকরা পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ এসে মেয়েটিকে উদ্ধার করে হারাগাছ হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে মেয়েটি এখন অবচেতন অবস্থায় আছে।

সারাই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আশরাফুল ইসলাম জানান, মেয়েটির সাথে একটি ছেলের সম্পর্ক ছিল। সম্পর্কের অবনতি হওয়ায় ছেলেটি রাতে ঘরের সিধ কেটে মেয়েটিকে দলবদ্ধভাবে ধর্ষণ করা হয় বলে শুনেছি।

আরো পড়ুন>>>রংপুরে চেয়ারম্যান পদে আ.লীগের অর্ধশত প্রার্থীর নাম কেন্দ্রে

হারাগাছ থানার ওসি আব্দুর রশিদ জানান, মেয়েটিকে উদ্ধারের সময় তার কথা বলার অবস্থা ছিল না। তাই তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে যতটুকু জানা গেছে তা হলো ঘরের সিধকেটে একদল দুর্বৃত্ত মেয়েটিকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করা হয়েছে। মেয়েটির ডাক্তারি পরীক্ষার পর ধর্ষণের বিষয়টি পরিষ্কার হবে। তখন সে অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি আরো বলেন, জিঞ্জাসাবাদের জন্য সাবেক প্রেমিক বিপ্লবকে আটক করা হয়েছে। ধর্ষণের বিষয়ে তাকে জ্ঞিাসাবাদ চলছে।

স্বাআলো/ডিএম