পাওনা টাকা চাইতে গিয়ে যুবতী ধর্ষণের শিকার : সন্তান প্রসব

বরিশাল ব্যুরো : প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে যুবতীকে একাধিকবার ধর্ষণ করে অন্ত: সত্ত্বা এবং সন্তান প্রসবের অভিযোগে পলাশ সিকদার নামে এক ব্যক্তির নামে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার বরিশালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলাটি দায়ের করে ধর্ষণের শিকার ওই যুবতী।

আদালতের বিচারক আবু শামীম আজাদ মামলাটি বাবুগঞ্জ থানার ওসিকে তদন্ত করে প্রতিবেদন আদালতে জমা দেয়ার আদেশ দিয়েছেন।

পলাশ সিকদার  বাবুগঞ্জ উপজেলার ঠাকুর মল্লিক সিকদারের ছেলে।

আরো পড়ুন>> সরকারি গাছ বিক্রি করে টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

জানা গেছে, ২০১৭ সালের ৩ নভেম্বর ভিকটিম তার পাওনা টাকার তাগিদ দিতে অভিযুক্ত পলাশ সিকদারের ঘরে যায়। এ সময় ঘরে কেউ না থাকায় পলাশ সিকদার ভিকটিমকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে  ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে বিভিন্ন সময় পলাশ হুমকি দিয়ে ভিকটিমকে একাধিকবার ধর্ষণ করে ফলে ভিকটিম অন্ত:সত্ত্বা হয়ে পড়লে বিষয়টি অভিযুক্তকে জানায়।

এ সময় অভিযুক্ত পলাশ তাকে হত্যার ভয় দেখিয়ে চট্টগ্রাম পাঠিয়ে দেয়। পরবর্তীতে কয়েক মাস পরে ভিকটিম বাচ্চা প্রসব করেন। জন্ম নেয়া ওই শিশু ও ধর্ষণের দায় না নেয়ায় নির্যাতিত যুবতী আদালতে মামলা দায়ের করেন।

স্বাআলো/এম