রিফাতের বাবা দুলাল শরীফ মনগড়া কথা বলেছেন : মিন্নি

জেলা প্রতিনিধি; বরগুনা :  রিফাত শরীফ হত্যাকারীদের শাস্তি এবং রিফাতের বাবা দুলাল শরীফের বক্তব্যকে বানোয়াট ও মনগড়া দাবি করেছেন রিফাতের স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি।

আজ রবিবার দুপুরে মিন্নির বাবার বাড়িতে সংবাদ সম্মেলন শ্বশুর দুলাল শরীফের ১০দফাকে অসত্য দাবি করে বলেন, নয়ন বন্ডের সাথে তার বিয়ে হয়নি। ২০১৮ সালের ১৫ অক্টোবর নয়ন বন্ড তার সহযোগীদের নিয়ে তাকে একটি ঘরে জোরপূর্বক ভাবে একটি কাগজে স্বাক্ষর করে নেয়। গত ২ মাস আগে দুই পরিবারের কর্তাব্যক্তিদের উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিকভাবে রিফাত শরীফের সাথে তার বিয়ে হয়েছে। রিফাতের সাথে বিয়ের পর নয়ন বন্ড কাবিননামা বের করে তাকে স্ত্রী হিসেবে দাবি করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অপপ্রচার চালিয়েছে।

আরো পড়ুন>> মিন্নিকে গ্রেফতারের দাবি করলেন রিফাতের বাবা দুলাল শরীফ

মিন্নি আরো বলেন, বিয়ের পর তিনি তার স্বামীর সাথেই কলেজে আসা-যাওয়া করতেন। ২৬ জুন রিফাত শরীফ মোটরসাইকেলে এসে তার বাবার বাড়ি থেকে তাকে নিয়ে কলেজে গিয়েছিলেন। সকাল ১০টার দিকে রিফাত তার স্ত্রীকে বলেছিলেন, তার বাবা দুলাল শরীফ তাদের নিতে এসেছেন। কলেজ গেটে এসে শ্বশুরকে না দেখে আবার কলেজে যেতে চেয়েছিলেন। তার দাবি, তখনই রিশান ফরাজীসহ হত্যাকারীরা তার স্বামী রিফাত শরীফকে জাপটে ধরে কলেজের বাইরে রাস্তায় নিয়ে যায়। কিছু বুঝে ওঠার আগেই কিল-ঘুষি, পরবর্তীতে কোপানো শুরু করে।

মিন্নির দাবি, অস্ত্রের সামনে তিনি তার স্বামীকে বাঁচানোর চেষ্টা করেছেন। ভিডিও ফুটেজে মানুষ সে দৃশ্য দেখেছে। তিনি তার স্বামীর হত্যা মামলার ১ নম্বর সাক্ষী।  স্বামী হত্যাকারীদের বিচার চান। অথচ তার শ্বশুর দুলাল শরীফ ষড়যন্ত্রকারীদের প্ররোচনায় পড়ে তাকে জড়িয়ে বানোয়াট কথা বলে সংবাদ সম্মেলন করেছেন। মিন্নি আরো দাবি করেন, ০০৭ গ্রুপটি অত্যন্ত শক্তিশালী। তারা নিজেদের বাঁচাতে হত্যাকাণ্ডটি ভিন্ন খাতে নেয়ার চেষ্টা করছে।

স্বাআলো/এম

 

.

Author