রংপুরে আগাছা নাশক প্রয়োগে মরে গেছে ধানের চারা

8

রংপুর ব্যুরো : রংপুরের বদরগঞ্জে রেভন এগ্রো কেমিক্যাল কোম্পানির পেরাটক নামের আগাছা নাশক প্রয়োগে সর্বনাশের মুখে পড়েছেন দুইজন কৃষক। আগাছা দমনের বিষ প্রয়োগ করায় প্রায় দুই বিঘা জমির আমন ধানের চারা মরে গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বদরগঞ্জ উপজেলার ছোট হাজীপুর ও ওসমানপুর গ্রামে। ভুক্তভোগি কৃষক ফারুক হোসেন আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য ইউএনও ও উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ করেছেন।  রেভন এগ্রোর রংপুর বিভাগীয় বিক্রয় ব্যবস্থাপক বলেন, কোন ব্যবসায়ী ওই কৃষকদের কাছে ওষুধ বিক্রি করেছে তা তার জানা নেই।

গত বৃহস্পতিবার বদরগঞ্জ পৌরশহরের কীটনাশক ব্যবসায়ী মোরশেদ সার বিতান থেকে রেভন কম্পানির পেরাটক ওষুধ কিনে ছোটহাজীপুর গ্রামের কৃষক ফারুক হোসেন। প্রায় এক বিঘা জমিতে আগাছা দমনের ওই ওষুধ প্রয়োগ করেন। এতে ঘাস দমনের সঙ্গে সঙ্গে আমন ধানক্ষেত নষ্ট হয়ে যায়। প্রায় ২০ হাজার টাকার ক্ষতি হয়েছে তার। একই অবস্থা দেখা যায়, ওসমানপুর গ্রামের কৃষক সাদেকুল ইসলামের।

কীটনাশক ব্যবসায়ী ঈমান আলী অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, এটি ঝাড়-জঙ্গল মারার ওষুধ। আমি কোন কৃষকের কাছে ধানের ক্ষেতে আগাছা মারার ওষুধ বিক্রি করিনি। কৃষকরা কার কাছ থেকে ওষুধ কিনেছে তারাই বলতে পারবেন।

বদরগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা  জোবাইদুর রহমান বলেন, মৌখিকভাবে বিষয়টি জানার পর ধান ক্ষেত দেখার জন্য একজন কর্মকর্তাকে পাঠানো হয়েছে। সত্যতা পাওয়া গেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

স্বাআলো/এসএ