সরকারি চাকরি পাওয়ার ৬ টিপস

ডেস্ক রিপোর্ট : আজকালকার যুগে একটা সরকারি চাকরি সবাই চায়। মাইনে থেকে শুরু করে ছুটি ও অন্যান্য সুবিধা, সব দিক থেকেই এ চাকরির জুড়ি নেই। তারপর আবার রিটায়ারমেন্টের পর ভালো অঙ্কের পেনশন- এটা সরকারি চাকরি ছাড়া আর কোথাও সম্ভব না। তাই শিক্ষিত তরুণ তরুণীদের সরকারি চাকরি পাওয়ার জন্য এতো ছোটাছুটি। কিন্তু জানেন কি কিভাবে আপনি সরকারি চাকরি পেতে পারেন।

জেনে নিন সহজ ৬টি উপায় আজকের আর্টিকেল থেকে।

১. যথেষ্ট সময় দিন : সরকারি চাকরি যেহেতু খুবই কাঙ্ক্ষিত একটি ক্ষেত্র, তাই এখানে প্রতিযোগিতা অনেক। সেখান থেকে আপনাকে চাকরিটা পেতে হবে। তাই তার জন্য দরকার প্রস্তুতি। আপনাকে নিজেকে সময় দিতে হবে আর কঠিন পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। নির্দিষ্ট সময় মেনে পড়তে হবে আর প্র্যাকটিস করতে হবে। তাই সরকারি চাকরি পাওয়ার জন্য একটা দীর্ঘদিনের পরিশ্রম লাগে।

আরো পড়ুন>>>  ইংরেজিতে ভালো করার দুটি মূলমন্ত্র

২. বেছে নিন উপযুক্ত প্রতিষ্ঠান : দেখুন সরকারি চাকরির জন্য হয়তো আপনি বাড়িতে বসেই প্রস্তুতি নিতে পারেন। কিন্তু একটি নির্দিষ্ট প্রতিষ্ঠানে যোগ দিয়ে সেখান থেকে নির্দিষ্ট পদ্ধতিতে প্রশিক্ষণ নিলে তা আরও ভালো। দেখুন কোনো প্রতিষ্ঠানে থাকে নির্দিষ্ট প্রশিক্ষণ দেওয়ার মতো প্যানেল, তারা জানে উপযুক্ত পদ্ধতি। আর সেখানে পরীক্ষাও নেওয়া হয় নির্দিষ্ট সময়ে, সেটা আপনার প্রস্তুতিতে সাহায্য করবে।

৩. কোন চাকরি করবেন সেটা দেখুন : দেখুন অনেকে ভাবেন যেহেতু সরকারি চাকরির প্রশ্নপত্রের প্যাটার্ন মোটামুটি একইরকম, তাই নির্দিষ্ট কোনো চাকরি না দেখে সবগুলোতেই দিলে হয়। একটা না একটা তো হয়েই যাবে। কিন্তু এখানেই ভুল। আপনাকে বাছতে হবে আপনি কোন চাকরির জন্য পড়বেন, কারণ উঁচু পদের জন্য আশা করলে পথ কিন্তু আলাদা আলাদা হয়। তাই প্রস্তুতিও আলাদা হবে। যেমন সরাসরি ক্যাডার জবে যেতে চাইলে আপনাকে বিসিএস দিতে হবে। আর বিএসের প্রস্তুতির সঙ্গে তো আর সাধারণ সরকারি চাকরির তুলনা হয় না। তাই কোন চাকরি আপনি করবেন সেটা ভাবুন আর নিজেকে বুঝুন আপনি কোন কাজের জন্য উপযুক্ত।

৪. ইন্টারভিউতে যান : আপনি হয়তো একবারেই সরকারি চাকরি পাবেন না। আবার হয়তো লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলেও ইন্টারভিউতে চান্স পেলেন না। এতে কিন্তু একদম ঘাবড়ে যাবেন না বরং বারবার ইন্টারভিউ দিন। প্রশ্নের সম্মুখীন হউন আর ব্যর্থ হলেও খারাপ লাগাবেন না। যতবার ইন্টারভিউ দেবেন, ততবার আপনার বলার দক্ষতা আর পার্সোনালিটি বাড়বে। তা আপনাকে একসময় সাহায্য করবে।

আরো পড়ুন>>>  বিসিএস পরীক্ষায় ভালো করতে সুশান্ত পালের নির্দেশনা

৫. আপ টু ডেট থাকুন : দেখুন, সরকারি চাকরি করতে হলে আপনাকে চোখ-কান খোলা রাখতে হবে। কখন কোথায় কি হচ্ছে সেটা আপনাকে খেয়াল রাখতেই হবে। চাকরির পরীক্ষার জন্য তো বটেই, চাকরি পাওয়ার পরেও পদোন্নতির জন্যও এটা খুব দরকার। আপনাকে চাকরি ক্ষেত্রেও হয়তো অনেক সময় অনেক চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হতে হতে পারে যা আপনি আপনার আপডেটেড থাকার ব্যাপার দিয়ে মিটিয়ে ফেলতে পারেন।

৬. একটা আকর্ষনীয় সি.ভি তৈরি করুন : ভালো করে সি.ভি তৈরি করতে হবে আজকের দিনে। দেখুন আজকের দিনটাই এমন নিজের ঢাক নিজেকেই পেটাতে হয়। তাই খুব সুন্দর করে আপনার রিজিউম তৈরি করুন। তাতে ভালো ভালো কথা লিখুন। সঠিক পদ্ধতি মানুন রিজিউম করার আর যতটা পারবেন প্রফেসনালি করুন। দেখবেন তা আপনার চাকরি পাওয়ার সম্ভাবনা অনেক বাড়িয়ে দেবে।

আশা করি এই কয়েকটি ব্যাপার মাথায় রাখলে আপনার জীবনে সরকারি চাকরি অবশ্যই আসতে পারে। আপনি শুধু নিজের চেষ্টা করুন আপনার সাধ্যমতো,বাকিটা হয়েই যাবে। কিন্তু যেটা সব কাজে খাটে এখানেও তাই খাটবে, পরিশ্রমের কোনো বিকল্প হয় না।

স্বাআলো/এসএ