সম্রাটের রিমাণ্ড শুনানি ১৫ অক্টোবর

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা : রাজধানীর রমনা থানার মাদক ও অস্ত্র আইনের মামলায় ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের বহিষ্কৃত সভাপতি ইসমাইল হোসেন চৌধুরী ওরফে সম্রাটকে আদালতে হাজির না করায় রিমান্ড শুনানি পিছিয়েছে। সম্রাট অসুস্থতার কারণে জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে ভর্তি থাকায় আগামী ১৫ অক্টোবর নতুন দিন ধার্য করেছেন আদালত।

বুধবার ঢাকা মহানগর হাকিম সারাফুজ্জামান আনছারী নিয়মানুযায়ী আসামির উপস্থিতিতে রিমান্ড শুনানির জন্য নতুন এ দিন ধার্য করেন। ফলে মাদক ও অস্ত্র মামলায় সম্রাটকে গ্রেফতার দেখানোসহ ২০ দিনের যে রিমান্ড আবেদন পুলিশ করেছিল সে বিষয়ে শুনানি হয়নি।

আরো পড়ুন>> হঠাৎ সম্রাটের বুকে ব্যথা, হাসপাতালে ভর্তি

এর আগে, বুধবার ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার ইকবাল কবির চৌধুরী প্রতিবেদন দিয়ে আদালতকে জানান, সম্রাট অসুস্থতার কারণে জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে ভর্তি । এ কারণে তাকে আদালতে হাজির করা সম্ভব হয়নি। এদিকে সম্রাটের সহযোগী বহিষ্কৃত ঢাকা মহানগর যুবলীগের নেতা এনামুল হক আরমানকেও মাদক মামলায় গ্রেফতার দেখানোসহ ১০ দিনের রিমান্ড শুনানির জন্য ওই একই দিন ঠিক করা হয়েছে।

গত ৭ অক্টোবর র‌্যাব-১ এর ডিএডি আব্দুল খালেক রাজধানীর রমনা থানায় দুটি মামলা করেন। এর মধ্যে অস্ত্র মামলায় সম্রাটকে একমাত্র আসামি এবং মাদক মামলায় সম্রাট ও আরমানকে আসামি করা হয়েছে। এর আগে, গত ৬ অক্টোবর কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে কুঞ্জশ্রীপুর গ্রাম থেকে ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাটকে আটক করে র‌্যাব। একইসঙ্গে তার সহযোগী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সহসভাপতি এনামুল হক আরমানকেও আটক করা হয়।

স্বাআলো/এম