নূর হোসেনকে মাদকাসক্ত বলায় জাপা মহাসচিবকে আল্টিমেটাম

রংপুর ব্যুরো: শহীদ নূর হোসেনকে মাদকাসক্ত বলায় জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবং বিরোধী দলীয় চীফ হুইপ মশিউর রহমান রাঙ্গাকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে গণমাধ্যমে দেয়া বক্তব্য প্রত্যাহার করে ক্ষমা চাওয়ার জন্য আল্টিমেটাম দিয়েছেন রংপুর মহানগর আওয়ামী লীগ।

আজ সোমবার দুপুরে যুবলীগের ৪৭তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর শোভাযাত্রা শেষে রংপুরে প্রেসক্লাব চত্বরে মহানগর যুবলীগ আয়োজিত সভায় এই আল্টিমেটাম দেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তুষার কান্তি মন্ডল। এসময় মহানগর যুবলীগের সভাপতি এবিএম সিরাজুম মনির বাশার, সাধারণ সম্পাদক মুরাদ হোসেনসহ আওয়ামী লীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

তুষার কান্তি মন্ডল বলেন, মশিউর রহমান রাঙ্গা একজন অরাজনৈতিক, সুবিধাবাদী ও লোভী নেতা।  বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক আন্দোলনে নূর হোসেন নামটি স্মরণীয়। ১৯৮৭ সালের ১০ নভেম্বর তৎকালীন স্বৈর শাসনের বিরুদ্ধে আন্দোলনে পুলিশের গুলিতে নূর হোসেন নিহত হন। তার মত গণতন্ত্রকামী যুবককে নেশাখোর, ফেনসিডিলসেবী ও ইয়াবাসেবী বলে মশিউর রহমান রাঙ্গা নিজের রাজনৈতিক অজ্ঞতার পরিচয় দিয়েছেন।

তিনি বলেন,  ১৯৮৭ সালে দেশে ইয়াবা, ফেনসিডিলের অস্তিত্ব ছিল না। কিন্তু মশিউর রহমান রাঙ্গা সেটার অস্তিত্ব পেয়েছেন। কারণ তিনি তো রাজনীতিবিদ নন, তিনি ছিলেন মোটর শ্রমিক। তার কাছ থেকে এর বেশি কিছু আশা করা যায় না। রাঙ্গাকে এই বক্তব্য প্রত্যাহার করতে হবে।

গত রবিবার দুপুরে জাতীয় পার্টির বনানী কার্যালয়ে আলোচনা সভায় শহীদ নূর হোসেনকে মাদকাসক্ত উল্লেখ করে বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা।

স্বাআলো/এসএ