চৌগাছায় পরকীয়ার কারণে ৩ সন্তানের জনকের আত্মহত্যা

চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি: যশোরের চৌগাছায় পরকীয়ার কারণে পারিবারিক কলহে মহিদুল ইসলাম (৩২) আগাছা নাশক বিষ পানে আত্মহত্যা করেছে। সে উপজেলার বকসীপুর গ্রামের বাসিন্দা।

আরো পড়ুন>>> চৌগাছায় অর্ধকোটি টাকা হাতিয়ে ভুয়া এনজিও ব্যবস্থাপনা পরিচালক উধাও

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় আগাছানাশক পানে আত্মহত্যার চেষ্টা চালালে তাকে প্রথমে চৌগাছা উপজেলা হাসপাতালে নেয়া হয়। চিকিৎসকরা যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে রেফার করলে সেখান থেকে তাকে ফেরৎ দেয়া হয়।

আরো পড়ুন>>> স্বাস্থ্যখাতে ২০ হাজার লোক নিয়োগ দেয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

আজ শনিবার বিকেল চারটায় নিজ বাড়িতে তার মৃত্যু হয়।

নিহতের প্রতিবেশিরা জানান, পাশের মাঠচাকলা গ্রামের  এক নারীর সাথে তার পরকীয়া সম্পর্ক ছিল। ওই নারীর নিকট থেকে মহিদুল বেশ কিছু টাকাও হাতিয়েছে। কয়েকদিন ধরেই ওই নারী এবং মহিদুলের পরিবারে এ নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছিল। ওই নারী মহিদুলকে এই বলে চাপ দেয় হয় টাকা ফেরৎ দিতে হবে, নয়ত তাকে বিয়ে করতে হবে। এ অবস্থায় নিজের পরিবারের আর ওই নারীর চাপে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায় মহিদুল।

আরো পড়ুন>>> যশোরে চরমপন্থী দলের সাবেক সদস্যকে গুলি করে হত্যা

স্বাআলো/এসএ