পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতেই পাকিস্তানে যাওয়ার সিদ্ধান্ত

স্পোর্টস ডেস্ক: সব জল্পনা-কল্পনা শেষে পাকিস্তানের মাটিতে পূর্নাঙ্গ সিরিজ খেলতে রাজি হয়েছে বাংলাদেশ।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) থেকে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, বাংলাদেশ ক্রিকেট দল পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতেই যাচ্ছে পাকিস্তানে। যেখানে শুধুমাত্র তিনটি টি-টোয়েন্টি আর দুটি টেস্ট ম্যাচই নয়, একটি ওয়ানডেও খেলবে বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা।

তবে, পিসিবি যে সংবাদ বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়েছে তাতে দেয়া আছে, বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা তিন দফায় যাবে পাকিস্তানে। প্রথম দফায় তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ এবং একটি টেস্ট খেলে ফিরে আসবে বাংলাদেশ দল। এরপর অনুষ্ঠিত হবে পাকিস্তান সুপার লিগ, পিএসএল। এই টুর্নামেন্ট শেষ হওয়ার পর আবারও পাকিস্তান সফরে যাবে বাংলাদেশ। তখন, একটি ওয়ানডে এবং বাকি টেস্ট খেলে আসবে টাইগাররা।

পিসিবির সেই সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে শিরোনামই দেয়া হয়েছে, পিসিবি এবং বিসিবি আসন্ন সিরিজের বিষয়ে ঐক্যমত্যে পৌঁছেছেন।’ সেখানে বিস্তারিত অংশে লেখা হয়েছে, আইসিসি ফিউচার ট্যুার প্ল্যানের (এফটিপি) অংশ হিসেবেই পাকিস্তান সফরে আসার ব্যাপারে ঐকমত্যে পৌঁছেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড।

পিসিবি চেয়ারম্যান এবং প্রধান নির্বাহীর সঙ্গে বিসিবির বৈঠকের মধ্যস্থতা করেন আবার আইসিসি চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর।

নতুন সূচি অনুসারে বাংলাদেশ লাহোরে তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে ২৪ থেকে ২৭ জানুয়ারির মধ্যে। এরপর ১০দিনের একটা লম্বা বিরতি। তারপর ৭ থেকে ১১ ফেব্রুয়ারি রাওয়ালপিন্ডিতে আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হিসেবে প্রথম টেস্ট খেলবে বাংলাদেশ এবং পাকিস্তান।

এই অংশ শেষ হওয়ার পর বাংলাদেশ দল ফিরে আসবে দেশে। পাকিস্তানে অনুষ্ঠিত হবে পিএসএল। ২২ মার্চ লাহোরে পিএসএল শেষ হওয়ার পর আবারো পাকিস্তান যাবে টাইগাররা। ৩ এপ্রিল করাচি একমাত্র ওয়ানডে এবং ৫ থেকে ৯ এপ্রিল বাংলাদেশ খেলবে দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচ।

স্বাআলো/আরবিএ