কোচিং সেন্টারে অভিযান: ২ শিক্ষকের কারাদণ্ড, শিক্ষার্থীদের ক্ষোভ

ময়মনসিংহ ব্যুরো: ময়মনসিংহের ফুলপুরে কোচিং সেন্টারে সোমবার ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে দুই শিক্ষকের এক মাস করে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা মহাসড়ক ২ ঘণ্টা অবরোধ রেখে বিক্ষোভ করে। তাদের বিক্ষোভের মুখে এক শিক্ষককে ছেড়ে দেয়।

জানা যায়, সাহাপুর গ্রামের আরিফুল ইসলাম ভাইটকান্দি ইউনিয়নের সখল্যা মোড়ে প্রায় ৯ বছর ধরে আরিফ প্রাইভেট সেন্টার নামে একটি কোচিং সেন্টার চালাচ্ছিল। সোমবার ইউএনও সাইফুল ইসলামের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে আরিফ কোচিং সেন্টারের পরিচালক আরিফুল ইসলামকে আটক করে।

আরো পড়ুন>>>  উত্তীর্ণ ১৮ হাজার প্রাথমিকের শিক্ষকদের জন্য দারুণ সুখবর

এ সময় শিক্ষার্থীরা আরিফুল ইসলামের মুক্তির দাবিতে মহাসড়কে গাছের টুকরো ও ইট দিয়ে অবরোধ করে। এ সময় রাস্তার দু’পাশে অসংখ্য গাড়ি আটকা পড়ে। পরে প্রায় ২ ঘণ্টা অবরোধ থাকার পর ভ্রাম্যমাণ আদালত আরিফুল ইসলামকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হন।

পুলিশ ছেড়ে দিলেও কোচিং সেন্টারের মালিক আরিফুল ইসলাম ও শিক্ষক তৌহিদুল ইসলাম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে এসে আত্মসমর্পণ করলে ভ্রাম্যমাণ আদালত তাদের এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন।

ইউএনও সাইফুল ইসলাম জানান, এসএসসি পরীক্ষা চলাকালীন সরকারি আইন অমান্য করে কোচিং সেন্টারটি চলছিল। এতে অভিযান পরিচালনা করে দুজনকে এক মাস করে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

স্বাআলো/এসএ