স্ত্রী বাঁচলো না, স্বামীর অবস্থাও আশঙ্কাজনক

জেলা প্রতিনিধি, ঠাকুরগাঁও: ঠাকুরগাঁওয়ে নৈশ কোচের চাপায় শিউলি আক্তার (১৮) নামে এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন। এতে গুরুতর আহত হয়ে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন নিহতের স্বামী বকস আলী (২৩)।

শনিবার রাত আটটার দিকে ঠাকুরগাঁও-বালিয়াডাঙ্গী সড়কের ভেলাজান নামক স্থানে এ সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শিউলি বেগম তার স্বামী বকস আলীর মোটরসাইকেলে করে বাপের বাড়ি কালমেঘ থেকে শ্বশুড়বাড়ি সদর উপজেলার রহিমানপুর ইউনিয়নের লক্ষীপুর মালতিচুড়া গ্রামের উদ্দেশ্যে রওনা হন। পথিমধ্যে শ্যামলী পরিবহনের একটি নৈশ কোচ ওভারটেক করতে গিয়ে মোটরসাইকেলটিকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় শিউলি বেগম। পরে স্থানীয়রা শিউলি বেগমের মরদেহ ও তার আহত স্বামীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে আসেন। আহত বকস আলীর অবস্থাও আশঙ্কাজনক বলে জানান হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক।

সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে সদর থানার ওসি তানভিরুল ইসলাম জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ প্রেরণ করা হয়েছে। এছাড়াও ঘাতক কোচটি আটকের চেষ্টা চলছে।

স্বাআলো/এসএ