করোনা নিয়ে ভয়ঙ্কর তথ্য দিলো দিলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনাভাইরাসে অনেকেই ভাবছেন, ঘরে কয়েকদিন আটকে কাটাতে পারলেই এই ভাইরাসের হাত থেকে রেহাই মিলবে। কিন্তু করোনা আতঙ্ককে আরো বাড়িয়ে দিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানালো শুধুমাত্র লকডাউন করে এই ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকানো যাবে না।

হু-এর মহানির্দেশক টেড্রোস আধানম ঘেব্রেয়েসাস বলেন, যে কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্যে শুধুমাত্র ঘরবন্দি থাকা দেশ তথা গোটা বিশ্ব থেকে এই ভাইরাস নির্মূল করার পক্ষে যথেষ্ট পদক্ষেপ নয়।

তিনি বলেন, কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ রোধের জন্যে, অনেক দেশই ‘লকডাউন’ ব্যবস্থা চালু করেছে। তবে শুধুমাত্র, এই পদক্ষেপের ফলে এই মহামারী হার মানবে না। আমরা সব দেশকে একসঙ্গে করোনাভাইরাসের আক্রমণের বিরুদ্ধে লড়ার জন্যে আহ্বান জানাচ্ছি। আপনাকে এর বিরুদ্ধে লড়তে গেলে ও সাফল্য পেতে হলে একটি দ্বিতীয় উইন্ডো বা দ্বিতীয় পথও বেছে রাখতে হবে’।

‘লকডাউনে সংক্রমণ কমানো যেতে পারে মাত্র, কিন্তু ওই মহামারীর বিরুদ্ধে জেতা যাবে না, লোকজনকে ঘরবন্দি করে রাখলে হয়তো স্বাস্থ্য সুরক্ষায় হাতে কিছুটা সময় পাওয়া যাবে, কিন্তু পুরোপুরি দূর করা যাবে না এই রোগকে। তাই সন্ধান করুন, বিচ্ছিন্ন করুন, পরীক্ষা করুন, চিকিৎসা করুন, বলেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান।

এমনকি করোনাভাইরাসকে রুখতে চীন, দক্ষিণ কোরিয়া এবং সিঙ্গাপুরের মডেল মেনে চলার জন্যে অন্য দেশগুলিকে পরামর্শ দিচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাটি। এই সংক্রমণ রুখতে এই সমস্ত দেশে লকডাউনের পাশাপাশি প্রত্যেক সম্ভাব্য রোগীর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে। একমাত্র এই মডেল মেনে চললেই স্থায়ীভাবে করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ করে দেওয়া সম্ভব হবে বলে মনে করছে হু।

স্বাআলো/এসএ