মেয়েকে ধর্ষণ চেষ্টার কথা স্বীকার করলো বাবা

জেলা প্রতিনিধি, নীলফামারী : নীলফামারীতে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে বাবার বিরুদ্ধে মামলা করেছেন এক তরুণী। ২০ বছর বয়সী ওই তরুণীর অভিযোগ তার বাবা তাকে ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে শ্লীলতাহানী করেন। সোমবার দুপুরে এলাকাবাসীর সহায়তায় অভিযুক্ত বাবাকে পুলিশে দিয়েছেন তিনি।

নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের দক্ষিণ রাজিব বড়বাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পরে ওই তরুণী বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে যৌন হয়রাণির মামলা করেন। সেই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে ওই ব্যক্তিকে (৫০) আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এলাকাবাসী ও মামলা সূত্রে জানা যায়, বড়বাড়ি গ্রামের ওই ব্যক্তির স্ত্রী চার বছর আগে মৃত্যুবরণ করেন। তার একমাত্র মেয়ে ঢাকার রামপুরায় একটি বাসায় গৃহপরিচারিকা হিসেবে কাজ করতেন। দুই মাস আগে মেয়েটি গ্রামের বাড়িতে এসে বাবা ও একমাত্র ভাইয়ের সঙ্গে বসবাস শুরু করেন।

রবিবার রাতে মেয়েটি ঘুমাতে গেলে তার বাবা ঘরে ঢুকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। পরে মেয়েটির চিৎকারে গ্রামবাসী ছুটে এসে ওই ব্যক্তিকে আটক করে। এরপর থানা পুলিশে খবর দিলে পুলিশ এসে তাকে গ্রেফতার করে নিয়ে যায়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই আব্দুল আজিজ জানান, আসামি আদালতে মেয়েকে ধর্ষণচেষ্টার কথা স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছেন। পরে আদালতের নির্দেশে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

স্বাআলো/এসএ