চৌগাছায় গর্ভবতী নারী, জজের বাবা ও দুই ব্যাংক কর্মকর্তার করোনা শনাক্ত

চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি: যশোরের চৌগাছায় গর্ভবতী নারী, সোনালী ব্যাংকের দুই কর্মকর্তা এবং একজন জজের বাবার করোনা শনাক্ত হয়েছে। এনিয়ে চৌগাছায় করোনা রোগির সংখ্যা দাড়ালো ৪৯ জনে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. লুৎফুন্নাহার লাকি।

আক্রান্ত শনাক্তরা হলেন মেহেরপুরের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট শিরিন নাহার বেবীর পিতা নজরুল ইসলাম, সোনালী ব্যাংক চৌগাছা শাখার দুই কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম ও হাসান আলী এবং সিংহঝুলী গ্রামের গর্ভবতী নারী লাবনী খাতুন।

এদের মধ্যে নজরুল ইসলাম পৌরসভার তারিনিবাস গ্রামের বাড়িতে, ব্যাংক কর্মকর্তা হাসান আলী পৌরসভার হুদাপাড়ায় নিজ বাড়িতে এবং জাহাঙ্গীর আলম যশোর শহরের বাসায় এবং গর্ভবতী লাবনী উপজেলার সিংহঝুলী গ্রামে বাবার বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. লুৎফুন্নাহার লাকি বলেন, গত ১১ জুলাই তাদের নমুনা পাঠানো হয় যশোর সিভিল সার্জন অফিসে। সেখান থেকে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জিনোম সেন্টারে পাঠানো হয়। রবিবার যবিপ্রবির জিনোম সেন্টারে এই ৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়। যে রিপোর্ট সোমবার এসে পৌছায়। তারা নিজ নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন।

স্বাআলো/ডিএম