পূর্বের কেনা পেঁয়াজ অতিরিক্ত মূল্যে বিক্রি, আড়ৎদারকে জরিমানা

পূর্বের কেনা পেঁয়াজ গুদামে সংরক্ষণ করে ঠাকুরগাঁওয়ের কাঁচামাল আড়তে অতিরিক্ত মূল্যে বিক্রি করায় আব্দুল জব্বার নামে এক আড়ৎদারকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

মঙ্গলবার দুপুরে শহরের গোবিন্দ নগরস্থ কাঁচামাল আড়তে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে ওই আড়ৎদারকে জরিমানা করেন ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ-আল-মামুন।

জানা যায়, শহরের গোবিন্দ নগরস্থ সমবায় মার্কেটের মেসার্স আল আমিন ট্রেডার্সের স্বত্তাধিকারী আব্দুল জব্বার ক্রয়মূল্যের সাথে সামঞ্জস্য না রেখে অতিরিক্ত দামে পেঁয়াজ বিক্রি করছে এমন অভিযোগ পেয়ে সেখানে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ-আল-মামুন।

এসময় অভিযোগের সত্যতা পেয়ে ব্যবসায়ী আব্দুল জব্বারকে অতিরিক্ত দামে পেঁয়াজ বিক্রির দায়ে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন তিনি।

এছাড়াও এসময় তিনি আড়তের বেশ কিছু পাইকারী ও খুচরা ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ঘুরে দেখেন এবং তাদের ইনভয়েস চেক করে অতিরিক্ত দামে পেঁয়াজ বিক্রি না করতে ব্যবসায়িদের নির্দেশ দেন। ক্রয় মূল্যের সাথে সামঞ্জস্য না রেখে অতিরিক্ত দামে বিক্রি বন্ধে এ জাতীয় অভিযান অব্যাহত খাকার ঘোষণা দেন তিনি।

আদালত পরিচালনাকালে প্রেসক্লাব সভাপতি মনসুর আলীসহ সদর থানার পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

ইউএনও আব্দুল্লাহ-আল-মামুন জানান, হঠাৎ করে আজকে আড়ৎদাররা পেঁয়াজের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে অভিযোগ পেয়ে আমরা আড়তে অভিযান পরিচালনা করি। এসে দেখতে পাই দেশী পেয়াজ ও ভারতীয় পেয়াজ অনেক বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে। যেটি ৩৮-৫০ টাকা কেজি ছিলো সেটি আজ ৭৫ টাকা বিক্রি হচ্ছে। পরে আমরা আড়তদারদের ইনভয়েজগুলো চেক করে দেখি গতকালের ২ হাজার টাকা মণে কেনা পিঁয়াজ আজ ৩ হাজার টাকা মণে বিক্রি করছে। একদিনে কিভাবে এটা করা সম্ভব?

তিনি বলেন, পেঁয়াজ আমাদের একটি নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস। এসব নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস যেনো কেউ অযথা দাম না বাড়ায় সে জন্য আমরা সব সময় এসব নজরদারিতে রাখবো এবং জনস্বার্থে এমন ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা অব্যাহত থাকবে।

স্বাআলো/এসএ