যশোরে বিপুলের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

যশোর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন বিপুলের বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম-ফেসবুকে অপপ্রচার ও রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন করা হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে প্রেসক্লাব যশোরের সামনে এই মানববন্ধনের আয়োজন করে যশোর সদর উপজেলা ও পৌর ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

ঘণ্টাব্যাপি চলা এ মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি খন্দকার মারুফ হুসাইন ইকবাল, জাবের হোসেন জাহিদ, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব আলম বিদ্যুৎ, আব্দুর করিম রহমান, পৌর ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহবায়ক রেজওয়ান হোসেন মিথুন, পৌর ছাত্রলীগের সদস্য তছিকুর রহমান রাসেল, ওবাইদুল ইসলাম রাকিব, লেবুতলা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের আহ্বায়ক রুহুল কুদ্দুস প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, আনোয়ার হোসেন বিপুল গত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জনগণের ভোটে নির্বাচিত একজন জনপ্রতিনিধি। কিন্তু বিপুলকে প্রতিপক্ষ মেনে যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও যশোর-৬ আসনের সংসদ সদস্য শাহীন চাকলাদার নানা অপকৌশলে তাকে স্তব্ধ করতে চান। এজন্য তার ক্যাডার ও সন্ত্রাসী বাহিনী আনোয়ার হোসেন বিপুলের দিকে লেলিয়ে দিয়েছেন। এমনকি তাকে হত্যার পরিকল্পনা পর্যন্ত করা হয়েছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম-ফেসবুকে আপত্তিকর এবং অসম্মানজনক ভাষা প্রয়োগ করে তার সম্মানহানী করা হচ্ছে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদাতবার্ষিকীর আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলকেও তারা বিতর্কিত করার অপ্রচেষ্টা করেছে। সর্বশেষ সোমবার তার বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক মামলা করা হয়েছে।

মানববন্ধন থেকে আনোয়ার হোসেন বিপুলের বিরুদ্ধে চলা এই অপরাজনীতির প্রতিবাদ জানানো হয়।

মাবববন্ধনে বক্তরা আরো বলেন, হামলা-মামলা দিয়ে আনোয়ার হোসেন বিপুলকে দাবিয়ে রাখা যাবে না। ওয়ান ইলেভেন সরকারের সময় যখন রাজনীতির উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়, তখনো আজকের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আটকের প্রতিবাদে বিপুলের নেতৃত্বেই যশোরে প্রথম প্রতিবাদ মিছিল বের হয়েছিল। তিনি কোন অপশক্তির বিরুদ্ধে মাথানত করবেন না।

স্বাআলো/ডিএম