সন্ত্রাসী হামলা নারীসহ ৩ জন আহত

বাগেরহাট : বাগেরহাটের কচুয়া উপজেলা পল্লীতে একটি বসত বাড়িতে মঙ্গলবার রাতে সন্ত্রাসী হামলা হয়েছে। ১০/১২ জনের সন্ত্রাসী দল লাঠিসোটা নিয়ে  চরকাঠি গ্রামের দুলাল সাহার বাড়িতে হামলা করে ঘরের মালামাল লুটপাট ও আসবাবপত্র ভাঙচুর করেছে। এ সময় বাধা দিতে গেলে বৃদ্ধ দুলাল সাহা (৬৫) ছেলে বউ মুক্তিরানি ও মুক্তি রানীর ছেলে শোভন সাহাকে (১৭)  বেদম মারপিট করা হয়। এদের মধ্যে  গৃহবধু মুক্তিরানী সাহাকে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্্ের ভর্তি করা হয়েছে। অন্য দু’জন প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

বিশ^জিৎ সাহা বলেন, মাছধরা জালপাতা নিয়ে স্থানীয় জটিলতায় চরকাঠি দুর্গা মন্দিরের সামনে মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর সালিশ বৈঠক বসে। ওই সালিশের প্রতিপক্ষ ক্ষিপ্ত হয়ে ১০/১২ জনের একদল লোক  রাত ৯ টার দিকে আমাদের বাড়িতে প্রবেশ করে। ঘরের বাইরে থেকে গালিগালাজ করতে করতে দরজার কাছে এসে  ঘরের দরজার ছিটকানি ভেঙে  প্রবেশ করে ভাঙচুর ও লুটপাট চালায়। এ সময়ে স্ত্রী মুক্তিরানী সাহা বাধা দিলে তাকে মারপিট করে। আমার বাবা দুলাল সাহা ও ছেলে শোভন সাহাকেও মারপিট করে আহত করে। পরে আমরা জীবন বাঁচাতে ঘরের পাটাতনে উঠে দরজা আটকে দেই। এক পর্যায়ে হামলাকারিরা চলে গেলে পুলিশের সহায়তায়  মুক্তিরানীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

কচুয়া থানার ওসি  মনিরুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

স্বাআলো/কে