নিশ্চিত মৃত্যু জেনেও বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতার ডাক দিয়েছিলেন: এমপি নাবিল

যশোর-৩ সদর আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ বলেছেন, বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কখনো জীবনের মায়া করেননি। নিশ্চিত মৃত্যু জেনেও তিনি স্বাধীনতার ডাক দিয়েছিলেন। তার কাছে নিজের জীবন নয় বাঙালির স্বাধীনতায় মূখ্য উদ্দেশ্যে ছিল। জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত তিনি দেশের মানুষের কল্যাণে কাজ করে গেছেন। দেশের অগ্রযাত্রা স্থবির করতে পাকিস্তানের প্রেতাত্মারা তাঁকে নির্মমভাবে হত্যা করে।

রবিবার শহরের বাদশা ফয়সাল ইসলামী ইনস্টিটিউটে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত ১৬ শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা ও মতবিনিময় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

প্রতিষ্ঠানের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সবুর হেলালের সভাপতিত্বে এমপি কাজী নাবিল আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধু জাতিকে স্বাধীন দেশ উপহার দিয়েছেন। তাঁর কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নয়নের রোল মডেল সৃষ্টি করে মানুষের অর্থনৈতিক মুক্তি দিয়েছেন। শিক্ষা, স্বাস্থ্য, খাদ্য, নারীর ক্ষমতায়ন, মাথাপিছু আয়ে দেশকে বিদ্যুতের গতিতে এগিয়ে নিচ্ছেন। যশোর উন্নয়নের অবস্থান প্রথম সারিতে রয়েছে। যশোরে কয়েক শত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নতুন বিল্ডিং হয়েছে। ৪০টির বেশি নতুন রাস্তা হয়েছে। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, মেডিকেল কলেজ ও ভৈরব নদী খননসহ কয়েকটি মেঘা প্রকল্প বাস্তবায়ন হয়েছে। বর্তমানে ঢাকা ও চট্টগ্রামের পরেই যশোরের অবস্থান। দেশের মধ্যে যশোর হবে তৃতীয় অর্থনৈতিক জোন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন বিপুল ও জেলা পরিষদ সদস্য মেহেদী হাসান মিন্টু।

এরপর কাজী নাবিল আহমেদ এমএসটিপি স্কুল এন্ড কলেজের চারতলা বিল্ডিংয়ের কাজ পরিদর্শন করেন।

স্বাআলো/এসএ