মানুষ

আমি স্বপ্নচারী, স্বপ্নে বাধি ঘর,
আকুল নয়ন পথহারাদের জোগায় মনোহর।

ক্রন্দন রোলে পিষ্ট আত্মায় যোগ শামিলের ভয়
চুরমার করি ভীরু মগজের পাপ-তাপ সমদ্বয়।

ফিরে যাও অসীমে যেথায় বাসা তোর,
জাননাই এ আত্মার গ্রাসে ত্রাসিত ভুবন ভোর।

আমি কে? তুই কে? এসবে নাই কোন ভাত
যেথা তার প্রাণ, সেথা মোর প্রাণ এসেছে এক জাত।

কারে শিখাও নীতিরাজ যত পূণ্য পূজার খেলা
মানুষ আমি সত্য প্রেম যপি কত শত কালবেলা,

খুন-রক্ত মাংসের স্বাদ বিভেদ ধর্মজাতি?
কে বলেরে ভাই মানুষ তারে পশুর সমান মাতি।

হে মহাবিশ্বের নিয়তি প্রধান, অনন্ত প্রেম প্রতীক
দেখে নাও, সৃষ্টি তোমার অসীম অজানা পথিক।

যদি ফিরে আসি কোনবার, মানুষ নয়ত আর
ধ্বংস-বিলাস রেখে দিও মোরে শক্তির সমাচার।

হিমেল আজাদ, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগ।

স্বাআলো/এসএ