মামলা করেও স্ত্রীকে না পেয়ে আদালতের সামনে স্বামীর আত্মহত্যা

হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জে আদালতের নির্দেশে স্ত্রী তার মায়ের কাছে ফিরে যাওয়ায় আদালতের সামনে স্বামী আত্মহত্যা করেছেন।

সোমবার দুপুরে জেলা নির্বাহী আদালতের সামনে নিজের পেটে ছুরিকাঘাত করে হাফিজ মিয়া (৩২) আত্মহত্যা করেন। তিনি সদর উপজেলার সুলতান মামদপুর গ্রামের বাসিন্দা। এ তথ্য নিশ্চিত করেন আদালত পরিদর্শক আল-আমিন।

আদালত পরিদর্শক আল-আমিন বলেন, স্ত্রীর সঙ্গে হাফিজের সম্পর্ক ভালো যাচ্ছিলো না। তাই তারা দুইজন আলাদা বসবাস করছিলেন। সম্প্রতি হাফিজ স্ত্রীকে ফিরে পেতে হবিগঞ্জ নির্বাহী আদালতে মামলা করেন। সোমবার বিচারক হাফিজের স্ত্রীর ইচ্ছায় তাকে তার মায়ের সঙ্গে যাওয়ার আদেশ দেন। কিছুক্ষণ পর হাফিজ বাইরে এসে আদালত ভবনের সামনে নিজের বুকে ছুরিকাঘাত করেন।

আরো পড়ুন>>>  আদালতে বিয়ের পর কনে গেলেন বাড়িতে, বর কারাগারে

আল-আমিন বলেন, সেখানে উপস্থিত মানুষ তাকে উদ্ধার করে হবিগঞ্জ ২৫০ শয্যা আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। সিলেট নেয়ার পথে হাফিজের মৃত্যু হয়।

সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. মিঠুন রায় বলেন, হাফিজের বুকে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন ছিল। সদর হাসপাতালে তার প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়।

স্বাআলো/এসএ