রাবি ভর্তি পরীক্ষা: দ্বিতীয় ধাপের আবেদন চলছে

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০২০-২১ সেশনের স্নাতক প্রথম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষার চূড়ান্ত আবেদনের দ্বিতীয় ধাপের আবেদন চলছে। এর আগে শনিবার বিকেল ৩টা পর্যন্ত আবেদনের প্রথম ধাপ সম্পন্ন হয়েছে। এই সময়সীমার মধ্যে মোট তিন ইউনিটে ১ লাখ ১ হাজার ২৮৭ জন শিক্ষার্থীর আবেদন জমা পড়েছে।

এদিকে, প্রথম ধাপের আবেদনে বিজ্ঞানের ভর্তি-ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের সব ইউনিটের চূড়ান্ত আবেদনে জিপিএ-৫ প্রয়োজন হলেও দ্বিতীয় ধাপের আবেদনে একটি ইউনিটে (বি ইউনিট) সর্বনিম্ন যোগ্যতা জিপিএ-৪.৫৮ রাখা হয়েছে। তাছাড়া বাকি দুটি ইউনিটে (এ ও সি ইউনিট) সর্বনিম্ন যোগ্যতা জিপিএ-৫ই থাকছে।

জানা গেছে, দ্বিতীয় ধাপের এই আবেদন চলবে আগামীকাল সোমবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত। এরপর রাত ১০টা থেকে শুরু হবে তৃতীয় ও শেষ ধাপের আবেদন। আগামী ৩১ মার্চ রাত ১২টা পর্যন্ত। আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে এ আবেদন চলবে বলে জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

রাবি ভর্তি পরীক্ষার আবেদন শুরু, জেনে নিন আবেদনের নিয়ম

এদিকে, দ্বিতীয় ধাপের আবেদনে মানবিক বিভাগের সর্বনিম্ন যোগ্যতা এ ইউনিটে জিপিএ-৪.৪২, বি ইউনিটে জিপিএ-৪.০৮ এবং সি ইউনিটে জিপিএ-৫ এবং ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের সর্বনিম্ন যোগ্যতা এ ইউনিটে জিপিএ-৪.৭৫ এবং সি ইউনিটে জিপিএ-৪.৫৮ বেধে দেয়া হয়েছে।

এর আগে ২৭ মার্চ বিকেল ৩টা পর্যন্ত ২০২০-২১ সেশনের স্নাতক প্রথম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষার চূড়ান্ত আবেদনের প্রথম ধাপ সম্পন্ন হয়েছে। তিন ইউনিটে প্রথম ধাপের জন্য নির্ধারণকৃত ১ লাখ ৩৫ হাজার শিক্ষার্থীর মধ্যে আবেদন করেছে ১ লাখ ১ হাজার ২৮৭ জন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী। যার মধ্যে এ ইউনিটে ৩৫ হাজার ৬০৯ জন, বি ইউনিটে ২৭ হাজার ২৮৬ জন এবং সি ইউনিটে ৩৮ হাজার ৩৯২ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য ও প্রযুক্তি সেন্টারের পরিচালক ড. বাবুল ইসলাম জানান, নির্ধারিত সময় শেষে মোট তিন ইউনিটে ৩৩ হাজার ৭১৩ জন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদনে অংশ নেননি। ফলে চূড়ান্ত তালিকার পেছনে থাকা বাকি শিক্ষার্থীরা দ্বিতীয় ধাপে আবেদনের সুযোগ পাবেন।

রাবিতে আবেদন ফি কমলো, থাকছে বিভাগ পরিবর্তনের সুযোগ

তবে প্রাথমিক আবেদনে বি ইউনিটে শুধু বাণিজ্যের বিভাগের শিক্ষার্থীদের নির্ধারিত আসনের কম আবেদন পড়ায় ৩১ মার্চ পর্যন্ত তারা আবেদনের সুযোগ পাবে বলে জানান তিনি।

স্বাআলো/এস