ঝিকরগাছায় রামকে অপহরণ মামলায় সাগর দুই দিনের রিমান্ডে

ঝিকরগাছা: যশোরের ঝিকরগাছার রেললাইন এলাকার হরিজনপল্লীর রাম প্রসাদ দাসকে অপহরণ করে চাঁদা আদায়ের মামলায় সাগর হোসেনকে (২৮) দুই দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ।

সাগর হোসেন পৌরসদরের ডাকবাংলো এলাকার বাসিন্দা।

এ ঘটনায় রাম প্রসাদ দাস দুই জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ৩/৪ জনকে আসামি করে থানায় মামলা করেছেন। পুলিশ সাগর হোসেনকে গতকাল রাতে আটক করে আজ মঙ্গলবার আদালতে প্রেরণ করে পাঁচ দিনের রিমান্ডের আবেদন করলে তা দুই দিনের মঞ্জুর করেন। এর আগে সাগরের নামে থানায় আরো ১১ টি মামলা রয়েছে।

মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, রাম প্রসাদ দাস গত রবিবার দুপুরে শার্শার এক ব্যক্তির কাছ থেকে পাওনা ২৫ হাজার টাকা নিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন। উপজেলার নাভারন পুরাতন বাজার ব্রিজের নিকটে আসলে সাগর হোসেন ও তার সঙ্গীরা তাকে অস্ত্রের মুখে অপহরণ করে মোটরসাইকেলে করে ঢাকাপাড়া মাঠে নিয়ে আটকায়ে রাখে। তখন তার কাছে থাকা ২৫ হাজার টাকা নিয়ে আরো টাকার দাবিতে মারপিট করে। এক পর্যায় তার ছেলে প্রতাপ দাস মোবাইল বিকাশের মাধ্যমে আরো ২৫ হাজার টাকা পাঠায়। টাকা পেয়ে রাত ৮ টার সময় ওই ব্রিজের সামনে তাকে রেখে ঘটনা জানাজানি না করার হুমকি দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়। এর আগে থেকে সাগর হোসেন তার কাছে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে আসছিল বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।

ঝিকরগাছার সার্ভেয়ার শহিদুলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ডিসির সুপারিশ

আটক সাগর হোসেনের স্ত্রী রেখা খাতুন জানান, রাম প্রসাদ দাসের কাছে সাগর টাকা পাবে। রাম প্রসাদ তার কাছ থেকে টাকা ধার নিয়ে টাল বাহানা করছিল। পাওনা টাকা আদায় করতে সে তাকে আটক রেখে ছিল। সাগর কোন চাঁদাবাজি করেনি।

থানার সেকেন্ড অফিসার কামরুজ্জামান জানান, সোমবার রাতে সাগর হোসেনকে তার বাড়ি থেকে আটক করা হয়। তার নামে এর আগে থানায় ৫টি মাদক, দুইটি করে অস্ত্র ও মারামারি, একটি করে বিস্ফোরক ও চাঁদাবাজী মামলা রয়েছে।

ওসি আব্দুর রাজ্জাক জানিয়েছেন, সাগর হোসেনকে পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন করলে আদালত তা দুই দিনের মঞ্জুর করেছেন। বাকি আসামিদেরকে আটকের অভিযান চলছে।

স্বাআলো/এসএ