যশোরে কমিউনিটি ও বিট পুলিশিংয়ের নামে চাঁদাবাজীর অভিযোগ

যশোর: যশোর শহরের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের স্টেডিয়ামপাড়ায় কমিউনিটি ও বিট পুলিশিংয়ের নামে চাঁদাবাজী চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে। আজ বুধবার ওই দুটি কমিটির বিরুদ্ধে এলাকাবাসী পুলিশ সুপারের কাছে এমন লিখিত অভিযোগ করেছেন। একই সাথে কমিটি দুইটি বাতিলের দাবি করা হয়েছে।

এলাকাবাসীর পক্ষে হাফিজুর রহমান পিন্টুসহ ৪১ জন আবেদনে স্বাক্ষর করেন।

অভিযোগে বলা হয়েছে, প্রায় দুই যুগ আগে পাড়ার কিশোর ও যুবকদের মাদক থেকে দূরে রাখতে ক্রীড়াচর্চা করার জন্য মিতালী সংঘ নামে একটি ক্লাব প্রতিষ্ঠা করা হয়। ক্লাবের মাধ্যমে যুবকদের মধ্যে দেশত্ববোধ জাগ্রত করতে জাতীয় দিবসসহ বিভিন্ন সময়ে খেলাধূলার আয়োজন করা হতো। কিন্তু কিছুদিন ধরে এলাকার কিছু স্বার্থপর ও ক্ষমতালোভী ব্যক্তি স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের না জানিয়ে কমিউনিটিং ও বিট পুলিশের কমিটি গঠন করে ক্লাবটি তারা দখল করে নেয়। কমিউনিটিং ও বিট পুলিশের কমিটি সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে তারা ক্লাবের সব কর্মকান্ড স্থগিত করে দিয়েছে। ওই কমিটির সদস্যরা কেউ জনপ্রতিনিধি নয়। কিন্তু তারা ওই অফিসের মাধ্যমে স্থানীয় বিচার, শালিশ ও জরিমানার অর্থ আদায় করছে। অনেক সময় সাধারণ মানুষকে মারপিট করেছে। কমিউনিটি পুলিশংয়ের নামে তারা এসব করছে।

এসব অপকর্ম থেকে রক্ষা পেতে এলাকার বর্তমান কমিউনিটি ও বিট পুলিশের কমিটি দ্রুত বাতিলের দাবি জানানো হয় ওই আবেদনে।