রিসোর্ট কাণ্ড: হেফাজত নেতা মাওলানা ইকবালসহ গ্রেফতার ৪

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও রয়েল রিসোর্ট কাণ্ডে ভাঙচুর ও মহাসড়কে নাশকতা সৃষ্টি মামলার প্রধান আসামি মাওলানা ইকবালসহ চার হেফাজত নেতাকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। ঢাকার জুরাইন থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে।

সোমবার সকালে এই খবর নিশ্চিত করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

এর আগে ৩ এপ্রিল সোনারগাঁওয়ের রয়েল রিসোর্টের এক রুমে হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হককে নারীসহ অবরুদ্ধ করে স্থানীয় লোকজন। পরে পুলিশ গিয়ে মামুনুলকে জিজ্ঞাসাবাদের সময় তার অনুসারীরা ওই রিসোর্টে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে। একপর্যায়ে তারা মামুনুলকে পুলিশের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেয়।

তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় হেফাজতের নেতাকর্মীরা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে টায়ার জ্বালিয়ে অগ্নিসংযোগ করে। ভাঙচুর করে শতাধিক যানবাহন। স্থানীয় আওয়ামী লীগ কার্যালয়ও ভাঙচুর করা হয়। পুলিশ তাদেরকে মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করলে হেফাজতের নেতাকর্মীদের সঙ্গে সংঘর্ষ বাধে। পুলিশ ৪ শতাধিক শর্টগান ও টিয়ারশেল ছুড়ে তাদেরকে ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

এবার তৃতীয় বিয়ের দাবি মামুনুল হকের

৭ এপ্রিল বিকেলে নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জায়েদুল আলম জানান, এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে তিনটি মামলা হয়। পুলিশ বাদী হয়ে দুটি মামলা করেছে। আর এক সাংবাদিক বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন।

পরে ১০ এপ্রিল হেফাজত নেতাদের বিরুদ্ধে আরো তিনটি মামলা দায়ের করা হয়। ওই ঘটনায় সর্বমোট ছয়টি মামলা হয়েছে। এরমধ্যে দুটি মামলার প্রধান আসামি মামুনুল হক।

স্বাআলো/এস