চৌগাছা উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির কার্যক্রম স্থগিত

চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি: আহবায়ক কমিটির সভা আহবানকে কেন্দ্র করে বিবাদমান দুই গ্রুপের নেতাদের বৈঠকে বাক-বিতণ্ডার জেরে চৌগাছা উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির কার্যক্রম পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত স্থগিত করেছে যশোর জেলা বিএনপি।

জানা গেছে, সম্প্রতি দ্রুত যশোর জেলা কমিটি গঠনের লক্ষে বিভিন্ন উপজেলা বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের উদ্যোগ নেয়া হয়। সে লক্ষে ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে সকল উপজেলার পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের একটি রূপরেখা হাতে নেয় জেলা বিএনপি। সেই সূত্র ধরে উপজেলা কমিটির আহবায়ক জহুরুল ইসলাম শনিবার (১৬ অক্টোবর) উপজেলা আহবায়ক কমিটির সভা আহবান করেন। সভায় জেলা নেতৃবৃন্দের অংশ নেয়ার কথা ছিলো। তবে অপরপক্ষ তাদের সাথে আলোচনা ছাড়াই সভা আহবান করা হয়েছে অভিযোগে সভায় যেতে অস্বীকৃতি জানান।

চৌগাছা পৌর যুবদলের আহবায়ক কমিটি: একজনের তিন পদ, সভাপতি বললেন ‘প্রিন্টিং মিসটেক’

বিষয়টি নিয়ে শুক্রবার (১৫অক্টোবর) জেলা বিএনপির অফিসে জেলা কমিটির সদস্য সচিব সৈয়দ সাবেরুল হক সাবুর সভাপতিত্বে এক জরুরী সভায় জেলার সিনিয়র নেতৃবৃন্দের সাথে চৌগাছা উপজেলা কমিটির আহবায়ক এবং চার যুগ্ম আহবায়ক অংশ নেন। সভায় বিভিন্ন বিষয় নিয়ে চৌগাছার আহবায়ক কমিটির দুই পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নেন। এক পর্যায়ে তা হাতাহাতিতে রুপ নেয়ার পরিস্থিতি সৃষ্টি হলে জেলা কমিটি সভা স্থগিত করেন।

পরে জেলা কমিটির সদস্য সচিব নিজের ফেসবুক আইডিতে স্টাটাস দিয়ে ‘প্রেস রিলিজ’ লিখে বলা হয়, ‘যশোর জেলা বিএনপির সিনিয়র নেতৃবৃন্দের এক জরুরী সভায় শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) ২০২১ হতে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত চৌগাছা উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির সকল কার্যক্রম স্থগিত করা হলো।’

দলের সূত্রগুলো জানায়, চৌগাছা উপজেলা বিএনপির ৩৬ সদস্যের আহবায়ক কমিটির অনুমোদন দেয়া হয় ২০১৯ সালের ১২ নভেম্বর। জেলা বিএনপির আহবায়ক অধ্যাপিকা নার্গিস বেগম ও সদস্য সচিব সৈয়দ সাবেরুল হক সাবু এই কমিটির অনুমোদন দেন। জহুরুল ইসলামকে আহবায়ক, ইউনূচ আলী, এমএ সালাম, পাতিবিলা ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমান লাল ও হাকিমপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদুল হাসানকে যুগ্ম আহবায়ক এবং অন্য ৩১ জনকে কমিটির সদস্য করা হয়। আহবায়ক কমিটি গঠনের পর থেকেই আহবায়ক জহুরুল ইসলাম, যুগ্ম আহবায়ক আতাউর রহমান লাল ও মাসুদুল হাসানের নেতৃত্বে একটি পক্ষ এবং যুগ্ম আহবায়ক ইউনূচ আলী ও এমএ সালামের নেতৃত্বে অপর পক্ষ সাংগঠনিক বিষয়ে বিবাদে জড়ান।

ইউনিয়ন বিএনপির আহবায়ক কমিটি গঠন নিয়ে যা চরম আকার নেয়। পরে করোনা মহামারির কারণে কমিটি গঠন কার্যক্রম স্থগিত করা হয়। তবে দুটি ইউনিয়ন কমিটি নিয়ে দু’পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নিয়ে সংবাদ সম্মেলন পর্যন্ত করে একে অপরপক্ষের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন। জেলার জ্যেষ্ঠ নেতাদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি কিছুটা শান্ত হলেও দলীয় বিভিন্ন কর্মসূচি দুই পক্ষ আলাদাভাবে করতে থাকেন। এরইমধ্যে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করতে উপজেলা আহবায়ক কমিটির সভা আহবান নিয়ে এই উদ্ভুত পরিস্থিতি তৈরি হয়।

উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক এমএ সালাম বলেন, আলোচনা না করে আহবায়ক কমিটির সভা আহবানসহ বিভিন্ন বিষয়ে জটিলতায় জেলা বিএনপি উপজেলা আহবায়ক কমিটির কার্যক্রম সাময়িকভাবে স্থগিত করেছেন।

উপজেলা বিএনপির আহবায়ক জহুরুল ইসলাম কমিটির কার্যক্রম সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন।

যশোর জেলা বিএনপির সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ সাবেরুল হক সাবু বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, সাংগঠনিক কিছু ভুল বোঝাবুঝিকে কেন্দ্র করে চৌগাছা উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির কার্যক্রম সাময়িকভাবে স্থগিত রাখতে বলা হয়েছে। বিষয়টি প্রেস বিজ্ঞপ্তি আকারে মিডিয়াতে দেয়া হয়েছে।

স্বাআলো/এসএ