বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাফের সভাপতি হলেন কাজী সালাউদ্দিন

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাউথ এশিয়ান ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি হলেন কাজী সালাউদ্দিন

সবকিছু ঠিকঠাকই ছিলো। বাকি ছিল শুধু আনুষ্ঠানিকতা। শনিবার (২ জুলাই) রাজধানীর একটি হোটেলে সাউথ এশিয়ান ফুটবল ফেডারেশনের (সাফ) ইলেক্টিভ কংগ্রেসে সেই আনুষ্ঠানিকতা শেষ হলো- চতুর্থবারের মতো সাফের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন।

কোনো প্রতিদ্বন্দ্বি ছিলো না কাজী সালাউদ্দিনের। তিনি একাই জমা দিয়েছিলেন সাফের সভাপতি পদের মনোনয়ন। তাই এবারো তিনি দক্ষিণ এশিয়ার ফুটবলের বড় নেতা হলেন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়।

চতুর্থবারের মতো সাফের সভাপতি হয়ে আবারো তিনি ঘোষণা দিয়েছেন, আগামী বছর থেকে নতুন টুর্নামেন্ট হবে সাফ ক্লাব চ্যাম্পিয়নশিপ আয়োজনের মধ্য দিয়ে। আগে প্রতিবার নির্বাচিত হয়েও সাফ ক্লাব চ্যাম্পিয়নশিপ আয়াজনের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন কাজী সালাউদ্দিন। কিন্তু সেই টুর্নামেন্ট আলোর মুখ দেখেনি।

সভাপতি নির্বাচিত হলেও দুই সহ-সভাপতি পদ শূন্য রয়েছে। এ প্রসঙ্গে সাফের সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন বলেছেন, ভারত, পকিস্তান ও নেপালের ফেডারেশনের সমস্যার কারণে পদ দুটি শূন্য। পরের কংগ্রেসে এ বিষয়ে ফয়সালা হবে।

ব্রিফিংয়ে সাফের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল হক হেলাল বলেছেন, আমরা একটা পরিকল্পনা করেছি। এখন থেকে এক বছর হবে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ, পরের বছর হবে সাফ ক্লাব চ্যাম্পিয়নশিপ।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
স্পোর্টস ডেস্ক