বাসে ভাড়া নিয়ে তর্কাতর্কি, যাত্রীকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে চাকায় পিষে হত্যা

গাজীপুর মহানগরীতে বাসের ভাড়া নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে কন্ডাক্টর ও হেলপার মিলে এক যাত্রীকে বাস থেকে ফেলে চাকায় পিষে হত্যা করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বৃহস্পতিবার (৭ জুলাই) সকালে মহানগরীর শিববাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

নিহতের নাম সায়েম (২০)। তিনি ময়মনসিংহ জেলার নান্দাইল থানার আওলাপাড়া এলাকার আবু ছাইদের ছেলে।

পুলিশ জানায়, তাকওয়া পরিবহণের একটি যাত্রীবাহী বাস মহানগরীর জয়দেবপর থেকে চান্দনা চৌরাস্তা আসার পথে শিববাড়ি এলাকায় পৌঁছায়। এ সময় তাকওয়া পরিবহণের কন্ডাক্টরের সঙ্গে ভাড়া নিয়ে ওই যাত্রীর কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে কন্ডাক্টর ও হেলপার মিলে সায়েমকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দিলে তিনি ওই বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।

এ ঘটনায় চালক সফিকুল ইসলাম ও হেলপার হিরা মিয়াকে স্থানীয়রা আটক করে পুলিশে দেন।

এ বিষয়ে গাজীপুর মেট্রোপলিটন সদর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, বাসসহ চালক ও হেলপারকে আটক করা হয়েছে। কন্ডাক্টর পলাতক রয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

স্বাআলো/এসএস