যশোরে হারপিক পানে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা

যশোরের মণিরামপুরে হারপিক পান করে ফারজানা (১৪) নামে এক স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা করেছে।

মঙ্গলবার (১ আগস্ট) রাতে নিজ বাড়িতে সে হারপিক পান করে। বুধবার (২ আগস্ট) ভোর চারটার দিকে যশোর জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত ফারজানা খাতুন মণিরামপুর উপজেলার রুপাসপুর গ্রামের প্রবাসী বাবলু সরদারের মেয়ে।

নিহত স্কুলছাত্রীর ভাই আবু সাঈদ জানান, মায়ের ওপর অভিমান করে মঙ্গলবার রাতে নিজ বাড়িতে হারপিক পান করে আত্মত্যার চেষ্টা করে। পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয়। বুধবার ভোর সাড়ে চারটার দিকে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক আহমেদ তারেক শামস তার মৃত্যু নিশ্চিত করেন।

মণিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নূরই আলম সিদ্দিকী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, যশোর জেনারেল হাসপাতালে ফারজানা খাতুন নামের এক স্কুলছাত্রী মারা গেছে, ইউডি মামলা হয়েছে। ময়নাতদন্ত করে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

স্বাআলো/এসপি

.

Author
নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর