গণপরিবহন চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার

জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে চট্টগ্রামে গণপরিবহন চলাচল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে নিয়েছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপ। বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) অনুরোধে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

শনিবার (৬ আগস্ট) দুপুরে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপের সভাপতি বেলায়েত হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে শুক্রবার রাতে জ্বালানি তেলের দাম বাড়ানোর পর শনিবার সকাল থেকে গাড়ি না চালানোর ঘোষণা দিয়েছিলো গ্রুপটি।

জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির কারণে গণপরিবহনের ভাড়া পুনঃনির্ধারণের দাবিতে সকাল থেকে বন্দর নগরী চট্টগ্রামে গণপরিবহন চলাচল বন্ধ রেখেছিলো বাস মালিকদের বিভিন্ন সংগঠন।

সকাল ৯টার দিকে কিছু গণপরিবহন শ্রমিক রাস্তায় নেমে জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির প্রতিবাদ জানান। এতে সকাল থেকেই ভোগান্তি পোহাতে হয় অফিসযাত্রী ও স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ সাধারণ যাত্রীদের।

এসময় পরিবহন মালিক-শ্রমিকরা জানান, জ্বালানির তেলের দাম বৃদ্ধির সাথে ভাড়া সমন্বয় না করা পর্যন্ত তাদের আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।

এ সুযোগে ভাড়া বাড়িয়ে দিয়েছেন সিএনজি অটোরিকশা এবং রিকশাচালকরা। অনেক যাত্রীকে বেশি ভাড়ায় বিকল্প উপায়ে গন্তব্যে যেতে দেখা গেছে।

প্রসঙ্গত, শুক্রবার (৫ আগস্ট) রাতে জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে, লিটারপ্রতি ডিজেলের দাম ৩৪ টাকা বাড়িয়ে ১১৪ টাকা, কেরোসিনও লিটারে ৩৪ টাকা দাম বাড়িয়ে ১১৪ টাকা করা হয়েছে। পেট্রোলের দাম লিটারে ৪৪ টাকা বাড়িয়ে ১৩০ টাকা ও অকটেনের দাম ৪৬ টাকা বাড়িয়ে লিটার প্রতি ১৩৫ টাকা ঘোষণা করা হয়েছে।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
ঢাকা অফিস