বাগেরহাটে চিংড়িতে অপদ্রব্য পুশ, ৭ জনকে হাতে-নাতে ধরলো র‌্যাব

খুলনার রুপসায় অসাধু ব্যবসায়ীরা ডিপোর বাইরে থেকে তালাবদ্ধ রেখে ডিপোর ভিতরে বসে রফতানিযোগ্য চিংড়িতে অপদ্রব্য পুশ করার সময় হাতে-নাতে ৭ জনকে আটক ও ৭০ কেজি চিংড়ি জব্দ করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে প্রত্যেককে ১ মাস করে কারাদণ্ড এবং জব্দকরা চিংড়ি ধ্বংস করা হয়।

খুলনা র‌্যাব-৬ এর মিডিয়া সেল থেকে শুক্রবার (১২ আগস্ট) সকালে এক মেইল বার্তায় জানানো হয়, খুলনা জেলার রুপসা উপজেলার রুপসা ঘাটের নিকট মাইক্রোবাস স্ট্যান্ডের বিপরীতে ‘প্রিয় ফিশ ডিপো’ নামের একটি ডিপোর বাইরে থেকে দরজায় তালা দিয়ে ডিপোর ভিতরে চিংড়িতে অপদ্রব্য পুশ করা হচ্ছে। এ সংবাদ গোপনে পেয়ে র‌্যাব-৬ এর একটি আভিযানিক দল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পরপরই ওই ডিপোতে অভিযান পরিচালনা করে অবৈধ ভাবে চিংড়িতে অপদ্রব্য পুশ করার সময় ৭ জনকে আটক করা হয়। এরা হলো, আনন্দ গাইন (৪৮), আলী মুনসুর (৫৫), সেলিম (৫৫), রফিকুল ইজারদার (৩২), ইমন মোল্লা (২২), টিপু সিকদার (৫৬) ও বাবুল শেখ (৪৬)। এদের বাড়ী রপসা, সাতক্ষীরা ও বাগেরহাটের ফকিরহাটে।

এ ঘটনায় রুপসা উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) রুবাইয়া তাসনিম এবং সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা বাপী কুমার দাশের সহযোগীতায় ভ্রাম্যমাণ আদালত করে প্রত্যেককে ১ মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয় এবং অপদ্রব্য পুশকৃত জব্দ করা প্রায় ৭০ কেজি চিংড়ি সকলের উপস্থিতিতে ধ্বংস করা হয়।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
আজাদুল হক, বাগেরহাট
জেলা প্রতিনিধি