এশিয়া কাপের দল ঘোষণা আজ, থাকতে পারে নতুন চমক

ফাইল ছবি

বহুল আলোচিত এশিয়া কাপের দল ঘোষণা আজ। রাতেই দেশে ফিরেছেন সম্ভাব্য অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। টিম ম্যানেজমেন্ট ও অধিনায়কের সঙ্গে বসে দল চূড়ান্ত করবেন নির্বাচকরা। ব্যাটিং ডিপার্টমেন্টে থাকতে পারে চমক।

আগে কখনো এমন হয়েছিলো? এশিয়া কাপের দল ঘোষণার আগে এতো নাটক। ইনজুরি আর সাকিব। ইস্যুগুলো পাল্লা দিয়ে ব্যস্ত রেখেছে নির্বাচকদের।

ইনজুরিতে ছিটকে গেছেন লিটন দাস, নুরুল হাসান, ইয়াসির আলি। সাকিব ইস্যুরও হয়েছে সমাধান। ক্যাপ্টেন্সিও পাচ্ছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। এ ছাড়া উপায়ও নেই। কারণ সোহান-লিটন ইনজুরিতে। মেহেদী মিরাজ একাদশে অনিশ্চিত।

যেকোনো সময় দল ঘোষণা। তার আগে টিম ম্যানেজমেন্ট ও অধিনায়কের সঙ্গে আলোচনায় বসবে নির্বাচক প্যানেল। সেখান থেকে দুই-এক জায়গায় হতে পারে অদল বদল।

এই ১১ জন প্রায় নিশ্চিত। ইনজুরির কারণে টি টোয়েন্টির নতুন চিন্তা থেকে সরে আসতে বাধ্য হচ্ছে বিসিবি। সোহান না থাকায় মুশফিকের বিকল্প নেই। ইয়াসির আলি থাকলে না হয় মাহমুদউল্লাহকেও বাদ দেয়ার চিন্তা করা যেত। ফলে টিকে যাচ্ছেন দুই সিনিয়র।

পেস বোলিং অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিন নাকি মৃত্যুঞ্জয়? সাকিবের পছন্দ সাইফউদ্দিন। তিনি পুরোপুরি ফিট হলে স্কোয়াডে নিশ্চিত।

আসল সমস্যা ওপেনিং। লিটন দাসের ইনজুরি বিপাকে ফেলেছে নির্বাচকদের। এনামুল বিজয়-নাজমুল শান্ত-মুনীম শাহরিয়ার-পারভেজ ইমন। কেউই দিতে পারেননি আস্থার প্রতিদান। তাই সৌম্য সরকার কিংবা নাইম শেখকে নিয়েও ভাবতে হচ্ছে। এ তালিকার ছয়জন থেকে স্কোয়াডে থাকতে পারেন যেকোন তিনজন।

১৫ জনের বাইরেও স্ট্যান্ডবাই রাখা হবে কয়েকজনকে। ভাবনায় আছেন সাব্বির রহমানও। দলে একমাত্র উইকেটকিপার মুশফিক। তাই বিকল্প হিসেবে প্রস্তুত রাখা হতে পারে জাকির হাসানকে। বোলিংয়ে মেহেদী মিরাজ কিংবা এবাদত। এদের যেকেউ মূল দলে থাকলেও অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না।

স্বাআলো/এসএস

.

Author
স্পোর্টস ডেস্ক