উত্তাল ইরান, পুলিশের গুলিতে নিহত ৫

ইরানের একটি কুর্দি মানবাধিকার সংস্থা দাবি করেছে, পুলিশ হেফাজতে নিহত কুর্দি তরুণী মাসা আমিনির মৃত্যুর বিচারের দাবিতে বিক্ষোভরত সাধারণ মানুষদের ওপর সোমবার গুলি চালিয়েছে পুলিশ। এতে পাঁচজন নিহত হয়েছেন।

হেংগো মানবাধিকার সংস্থা টুইটে বলেছে- কুর্দিস শহর সাকিজে দুইজন, দিভানদারেতে দুইজন ও দেহগোলানে একজন নিহত হয়েছেন। তাদের দাবি, বিক্ষোভকারীদের ওপর পুলিশের সরাসরি গুলিতে পাঁচজন নিহত হয়েছেন।

তবে এ দাবির সত্যতা যাচাই করতে পারেনি আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো। কারণ এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে এ ব্যাপারে কিছু জানায়নি ইরান। তাছাড়া ইরানের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমগুলোতে দাবি করা হচ্ছে, বিক্ষোভে কয়েকজন আহত হয়েছেন।

এদিকে গত সপ্তাহে ইরানে পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু হয় মাসা আমিনি নামে ২২ বছর বয়সী ওই তরুণীর। হিজাব না পরায় মাসা আমিনিকে গ্রেফতার করা হয়।

কিন্তু পরবর্তীতে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তিন দিন কোমায় থাকার পর তার মৃত্যু হয়।

অভিযোগ ওঠেছে, পুলিশ হেফাজতে মাসা আমিনিকে নির্যাতন করা হয়েছে। এতে তার মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মাসা আমিনির জন্মস্থান কুর্দিস্থানসহ ইরানের বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ হচ্ছে।

এর মাঝেই বিষয়টি নিয়ে সোমবার মুখ খুলে তেহরানের পুলিশ। তাদের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে এটি একটি দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা।

সূত্র: রয়টার্স

স্বাআলো/এস

.

Author
আন্তর্জাতিক ডেস্ক