ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে কিশোরীকে হত্যা, স্বামী-স্ত্রীর যাবজ্জীবন

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা উপজেলায় কিশোরীকে (১৬) ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে হত্যার ঘটনায় করা মামলায় স্বামী-স্ত্রীকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এ সময় ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে প্রত্যেককে আরো তিন মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৫ নভেম্বর) বিকেলে আদালতের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট রকিবুদ্দিন আহমেদ রকিব এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে একই দিন দুপুরে নারায়ণগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক নাজমুল হক শ্যামল এ রায় দেন। তবে রায় ঘোষণার সময়ে দুইজনই পলাতক ছিলেন। এ ছাড়া একই ঘটনায় আসামিদের মানবপাচার আইনে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো তিন মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তিরা হলেন- পটুয়াখালীর কলাপাড়া এলাকার আব্দুল মজিদের ছেলে স্বপন গাজী (৪৫) ও তার স্ত্রী আঁখি আক্তার তমা (৩৯)।

মামলা সূত্র থেকে জানা গেছে, ২০১৩ সালের ১০ নভেম্বর রাতে ফতুল্লার দাপা ইন্দ্রাকপুর এলাকার একটি ভাড়া করা বাসায় ধর্ষণচেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে বালিশচাপা দিয়ে ওই কিশোরীকে হত্যা করে। পরে এ ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়। সেই মামলার বিচার কার্যক্রম শেষে আদালত মঙ্গলবার দুপুরে এ রায় দেন আদালত।

এ বিষয়ে অ্যাডভোকেট রকিবুদ্দিন আহমেদ রকিব বলেন, এ ঘটনার মামলায় ১০ সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণের ভিত্তিতে আদালত এ রায় ঘোষণা করেছেন। এ সময় এক আসামি আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

স্বাআলো/এস

.

Author
জেলা প্রতিনিধি, নারায়ণগঞ্জ