চৌগাছায় ফায়ার সার্ভিসের দ্রুত পদক্ষেপে রক্ষা পেলো শতাধিক দোকান ও বসতবাড়ি

যশোরের চৌগাছা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের কর্মীদের দ্রুত ও দক্ষতায় রক্ষা পেয়েছে চৌগাছা শহরের শতাধিক দোকান ও বসতবাড়ির সম্পদ।

সোমবার (২১ নভেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে চৌগাছা শহরের প্রাণকেন্দ্রে চৌগাছা-যশোর সড়কের চৌগাছা বাজার ব্যবসায়ী সমিতি ভবনের পাশের একটি ভাড়াবাড়িতে সাংবাদিক শ্যামল দত্তের বাসার গ্যাস সিলিন্ডারে আগুন ধরলে বাজারের ব্যবসায়ীদের মধ্যে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। তাৎক্ষণিক ব্যবসায়ী সমিতির যুগ্ম সম্পাদক আজিজুর রহমান অ্যাডমিরাল চৌগাছা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনে ফোন করলে এক মিনিটের মধ্যে ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে। এরপর আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

বাজার ব্যবসায়ী সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান অ্যাডমিরাল বলেন, দুপুর আড়াইটার দিকে সমিতির দ্বিতল ভবনের পাশের একটি ভবনে স্থানীয় সাংবাদিক শ্যামল দত্তের ভাড়ার বাসায় গ্যাস সিলিন্ডারে আগুন ধরে যায়। সংবাদ পেয়ে আমি চৌগাছা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনে মোবাইল করি। মাত্র ৫৯ সেকেন্ডের মধ্যে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি ঘটনাস্থল চৌগাছা শহরের প্রাণকেন্দ্রে পৌঁছে এবং আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

তিনি বলেন, তারা আসতে একটু দেরি করলেই মারাত্মক দুর্ঘটনা ঘটে যেতো। পাশের ব্যবসায়ী সমিতি ভবনসহ বেশ কয়েকটি ভবনের প্রায় অর্ধশত দোকান ঘর এবং অর্ধশত বসত বাড়িতে ছড়িয়ে পড়তো আগুন। এতে বিপুল পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হতে পারতো।

চৌগাছা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ইনচার্জ সাব অফিসার (সহকারী কর্মকর্তা) রবিউল ইসলাম বলেন, আমাদের আসতে দশ মিনিট দেরি হলেই গ্যাস সিলিন্ডারটি বাষ্ট হয়ে যেতো। তখন দ্রুত আগুন নিয়ন্ত্রণ করা অসম্ভব হয়ে পড়তো। এতে বিপুল পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হতে পারতো।

তিনি বলেন, আগুন নিয়ন্ত্রনে নিতে এক ফায়ার সার্ভিস কর্মীর হাতের কিছুটা পুড়ে গেছে।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
আজিজুর রহমান, চৌগাছা (যশোর)
উপজেলা প্রতিনিধি