স্বপ্ন দেখতেন জিভে ছোবল মারছে সাপ, জ্যোতিষীর পরামর্শে জিভই খোয়ালেন চাষী!

জ্যোতিষীর পরামর্শ অক্ষরে অক্ষরে পালন করার জন্য সর্পদেবীর মন্দিরে পৌঁছন চাষি। পুজোআর্চা করেন। তার পর সকলের নজর এড়িয়ে মন্দিরের পাশে সাপের গর্তের সামনে চলে যান।

ভারতের চেন্নাইয়ের এক চাষী রোজ স্বপ্ন দেখতেন চন্দ্রবোড়া সাপ জিভে ছোবল মারছে। আর তখনই ঘুম ভেঙে ধড়মড় করে উঠে বসে পড়তেন। প্রতিদিন একই স্বপ্ন দেখতে দেখতে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছিলেন এক চাষী। এই দোষ কাটাতে শেষমেশ তিনি শরণাপন্ন হন এক জ্যোতিষীর।

তার কাছে সব কথা খুলে বলেন চাষী। সব শোনার পর জ্যোতিষী তাকে জানান, এই দোষ কাটাতে একটা উপায় আছে। এর পরই তিনি চাষীকে পরামর্শ দেন, এলাকায় কোনো সর্পদেবীর মন্দির থাকলে সেখানে গিয়ে পুজোআর্চা এবং কিছু রীতিনীতি পালন করতে হবে। যে সাপের স্বপ্ন দেখেন, প্রয়োজনে সেই সাপের ছোবলও নিতে হবে জিভে। তা হলেই দোষমুক্ত হবেন।

জ্যোতিষীর পরামর্শ অক্ষরে অক্ষরে পালন করার জন্য সর্পদেবীর মন্দিরে পৌঁছান চাষী। পুজোআর্চা করেন। তারপর সকলের নজর এড়িয়ে মন্দিরের পাশে সাপের গর্তের সামনে চলে যান। গর্তে চন্দ্রবোড়া সাপ ছিলো। গর্তের মধ্যে জিভ ঢুকিয়ে দিতেই সাপ পর পর তিন বার ছোবল মারে। ছোবল খেয়েই মাটিতে পড়ে যান চাষী। বিষয়টি নজরে যায় মন্দিরের পুরোহিতের। তখন তিনি ছুটে গিয়ে চাষীকে উদ্ধার করেন। বিষ যাতে সারা শরীরে ছড়িয়ে না পড়ে তৎক্ষণাৎ চাষির জিভ কেটে দেন পুরোহিত। তার পর সেই অবস্থাতেই হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় চাষীকে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, বিষের কারণে চাষীর জিভের স্নায়ুগুলো অকেজো হয়ে গেছে। ঘটনাটি তামিলনাড়ুর ইরোডের কোপিচেত্তিপালায়ামের। জ্যোতিষীর বিরুদ্ধে স্বতঃপ্রণোদিত মামলা রুজু করেছে পুলিশ।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
আন্তর্জাতিক ডেস্ক