চুয়াডাঙ্গায় বৃদ্ধাকে পিটিয়ে হত্যা, ছেলে ও পুত্রবধূ পুলিশ হেফাজতে

লাশের ফাইল ছবি

চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গায় রাহেলা খাতুন (৭৬) নামে এক বৃদ্ধাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ছেলে, পুত্রবধূ ও নাতির বিরুদ্ধে।

বুধবার (৩০ নভেম্বর) বিকেল ৪ টার দিকে নিহত বৃদ্ধার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

সাড়ে ৫ টায় নিহতের ছেলে, পুত্রবধূ ও নাতি ছেলেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আলমডাঙ্গা থানা পুলিশ হেফাজতে নিয়েছে। এর আগে মঙ্গলবার দিনগত রাত ২ টার দিকে আলমডাঙ্গা উপজেলার ভাংবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত রাহেলা খাতুন একই গ্রামের মৃত হুর আলীর স্ত্রী।

স্থানীয়রা জানান, মঙ্গলবার রাত ২ টার দিকে বৃদ্ধা রাহেলা খাতুন প্রসাব করার জন্য তার ছেলেকে ডাকে দেয়। এতে বিরক্ত হয়ে সেলিম, তার স্ত্রী ও নাতি উঠে তাকে কাঠের বাটাম দিয়ে মারধর করে। মাথায় আঘাত করলে তার মাথা ফেটে যায়। এতে রাতেই তার মৃত্যু হয়। তাকে মৃত অবস্থায় বিছানায় শুইয়ে রাখে। পরে তারাও ঘুমিয়ে পড়ে। বিষয়টি সকালে জানাজানি হয়।

চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার (এসপি) আব্দুল্লাাহ্ আল-মামুন জানান, নিহত বৃদ্ধার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর আসল কারণ জানা যাবে। ছেলে, পুত্রবধূ ও নাতি ছেলেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
মফিজুর রহমান জোয়ার্দ্দার, চুয়াডাঙ্গা
জেলা প্রতিনিধি