যশোরে প্রতারণার অভিযোগে চুন্নু ও মিলির বিরুদ্ধে থানায় মামলা

যশোরে শহরের বহুল আলোচিত-বিতর্কিত চুন্নু ও তার বোন মিলির বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগে কোতোয়ালী থানায় মামলা হয়েছে।

শুক্রবার (১৩ জানুয়ারী) চুন্নুর আপন ভগ্নিপতি যশোর শহরের পুলিশ লাইন টালিখোলার জিকরুল ইসলাম মামলাটি করেছেন।

মামলায় তিনি উল্লেখ করেছেন, তার আপন শ্যালক আলী মাহমুদ মিয়া চুন্নু ও শালি রিজিয়া সুলতানা মিলি প্রতারণা করে ঘরের ডিপ ফ্রিজ, লম্বা ফ্রিজ, সোপাসহ ঘরে থাকা বিদেশী বিভিন্ন মালামালসহ স্থানীয়ভাবে কার সিরিয়ালের প্রায় ৬ লাখ টাকা বিশ্বাস ভঙ্গ করে হাতিয়ে নিয়েছে। ফেরত চাইলে চন্নু ও মিলি হত্যার হুমকি দেয়।

বিভিন্নভাবে দেন দরবার করে ফেরত না পেয়ে তিনি মামলা করতে বাধ্য হয়েছেন।

মামলায় আরো বলেন, আমার স্ত্রী মারা যাওয়ার পরে চুন্নু ও মিলি আমার তৃতীয়তলা বাড়ি লিখে দিতে বলে কিন্তু আমি রাজি হয়নি। সে কারণে এই বয়সেও (৭২ বছর) আমার বিরুদ্ধে থানায় ধর্ষণের অভিযোগ করে ক্ষ্যান্ত হয়নি, নড়াইলে আমার নামে চাঁদাবাজির মামলা দিয়েছে। আমার স্ত্রীর সাত ভরি সোনার গহনা আত্মসাৎ করেছে এ ঘটনায় আদালতে মামলা করেছি। আর চুন্নুর বিরুদ্ধে তিনবার জিডি করেছি থানায়। আসামি চুন্নু ও মিলি আমার বাড়ির তিনতলা জোর করে থাকে।

জিকরুল ইসলামের মামলায় অপর আসামি হলো পুরাতনকসবা টালিখোলার মিরাজুল ইসলামের স্ত্রী রিজিয়া সুলতানা মিলি।

আসামি চুন্নুর বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগে আরো মামলা আছে বলে জানা গেছে।

মামলার অভিযোগে জানা গেছে, রিজিয়া সুলতানা মিলি ভাড়াটিয়া হিসেবে জিকরুল ইসলামের বাড়িতে বসবাস করতেন। সেই সুবাদে মিলি বাড়ির মালিকের বাসায় যাতায়াত করতেন। এরমধ্যে তার সাথে মনোমালিন্য সৃষ্টি হলে জিকরুল ইসলামের ক্ষতি করার ষড়যন্ত্র শুরু করেন। ২০২১ সালের ৫ মে অপর আসামির সহযোগীতায় মিলি বাসার লোকজনের অনুপস্থিতিতে একটি সোফা সেট, ডিপ ফ্রিজ, লেদার, সেলাই মেশিন, গ্যাসের চুলসহ প্রায় সাড়ে ৩ লাখ টাকার মালামাল নিয়ে যায়। এছাড়া স্থানীয়ভাবে করা সিরিয়ালের জিকরুল ইসলামের পরিবারের ৮ সদস্যের ৫ লাখ ৮৬ হাজার টাকা নিয়ে আত্মসাৎ করেন আসামিরা। এ নিয়ে সালিশে দ্রুত টাকা পরিশোধ করার অঙ্গীকার করলেও মিলি ও চুন্নু টাকা পরিশোধ না করে ঘোরাতে থাকেন। পাওনা টাকা ও মালামাল ফেরত চাইলে আসামিরা খুন জখমের হুমকি দিচ্ছেন। অবশেষে টাকা ও মালামাল উদ্ধারে ব্যর্থ হয়ে তিনি ওই দুইজনকে আসামি করে কোতয়ালি থানায় এ মামলা করেছেন।

এ বিষয়ে কোতোয়ালী থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) শফিকুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, মালামাল জব্দ এবং আসামি চুন্নু ও মিলিকে আটকের জন্য পুলিশ অভিযানে যায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ঘরে তালা মেরে পালিয়ে যায়।

স্বাআলো/এসএ

.

Author
নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর