লাললমনিরহাটে বালু-মহাল বন্ধের দাবিতে কৃষকদের মানববন্ধন

লাললমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার উত্তর পারুলিয়ার প্রায় তিন একর ফসলি জমি বালু-মহাল বন্ধের দাবিতে স্থানীয় ভুক্তভোগী কৃষকরা মানববন্ধন করেছে। এ সময় প্রায় দু’ শতাধিক কৃষক মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করে।

শনিবার (১৪ জানুয়ারি) দুপুরে উপজেলার উত্তর পারুলিয়া চরে স্থানীয় কৃষকরা ঘণ্টাব্যাপী এ মানববন্ধন করে।

উক্ত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন পাটিকাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মজিবুল আলম সাদাত, স্থানীয় কৃষকদের মধ্যে হুমায়ুন কবির, মনিরুজ্জামান, দেবাশীষ রায়, জাদু মিয়া, শফিকুল ইসলাম, ইব্রাহীম, দেলোয়ার হোসেন প্রমুখ।

বক্তাগণ বলেন, এখানে আমাদের অনেকের বসতভিটে রয়েছে। এছাড়া তিস্তা নদীর জেগে উঠা চরে ভুট্টা, মরিচ, পিঁয়াজ, আলু, রসুনসহ নানাবিধ ফসল ফলানো হয়। যা দিয়ে আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে সুখে শান্তিতে রয়েছি। কিন্তু ওই জমিতে বালু-মহাল করা হলে আমরা পথে বসে যাবো। ১৯৪০ ও ১৯৬২ সালের রেকর্ড মূলে ওই জমির মালিক আমরা। কিন্তু তথ্য ভুল করে স্থানীয় প্রশাসন ১৯৯০ সালের রেকর্ডে ১নং খাস খতিয়ানভুক্ত করেছেন। ওই জমিতে বালু-মহাল করার প্রক্রিয়া বন্ধ ও রেকর্ড সংশোধনের দাবী করছি।

এ বিষয়ে হাতীবান্ধা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) লোকমান হোসেন বলেন, বিভাগীয় কমিশনার মহোদয়ের নির্দেশক্রমে বিআরএসে খাস খতিয়ানভুক্ত তিস্তার চরাঞ্চলের কয়েকটি স্থানে বালু-মহাল করার প্রস্তাবনা পাঠানো হয়েছে। তবে স্থানীয় কৃষকদের আপত্তি থাকলে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

স্বাআলো/এসএস

.

Author
জেলা প্রতিনিধি, লালমনিরহাট