উদ্ভাবন সূচকে ১৪ ধাপ উন্নতি বাংলাদেশের

বৈশ্বিক উদ্ভাবন সূচকে ১৪ ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ। জাতিসংঘের ওয়ার্ল্ড ইন্টেলেকচুয়াল প্রোপার্টি অর্গানাইজেশনের (ডব্লিউআইপিও) উদ্ভাবন সূচকে ২০২১ সালে বাংলাদেশের অবস্থান ছিলো ১১৬তম। ২০২২ সালে ১৪ ধাপ এগিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান এখন ১০২তম। ১৩২টি দেশের মধ্যে এই সূচক করা হয়।

সূচকে বাংলাদেশের স্কোর ১৯ দশমিক ৭। সূচকের শীর্ষ দেশ সুইজারল্যান্ডের স্কোর ৬৪ দশমিক ৬। তবে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের এই স্কোর তার উন্নয়নের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ। একটি দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা, মানবসম্পদ, গবেষণা ও ব্যবসা-বাণিজ্যের পরিশীলনের ওপর তার স্কোর নির্ভর করে।

বাংলাদেশ সবচেয়ে ভালো করেছে সৃজনশীল উপসূচকে। এই খাতে বাংলাদেশের উন্নতি হয়েছে ৩৬ ধাপ। এ ছাড়া প্রতিষ্ঠান উপসূচকে বাংলাদেশ ১৩ ধাপ এগিয়ে ২০২২ সালে ১০৯-এ উঠে এসেছে। মানবসম্পদ গবেষণায় অবশ্য অগ্রগতি মাত্র এক ধাপ ১২৮ থেকে ১২৭। অবকাঠামোতেও অগ্রগতি মাত্র এক ধাপ।

প্রতিবেদনের তথ্যানুসারে, দক্ষিণ এশিয়ায় সবচেয়ে এগিয়ে আছে ভারত। তার র‍্যাঙ্কিং ৪০। এরপর শ্রীলঙ্কা আছে ৮৫ ও পাকিস্তান আছে ৮৭ নম্বরে। নেপাল আছে ১১১ নম্বরে। এ ছাড়া এশিয়া অঞ্চলের মধ্যে ইন্দোনেশিয়া ও কম্বোডিয়া আছে যথাক্রমে ৭৫ ও ৯৭তম স্থানে।

স্বাআলো/এস

.